সোমবার , ৪ ডিসেম্বর ২0১৭
  • হোম » কলকাতা » জিডি বিড়লা স্কুলের ঘটনাকে দুর্ভাগ্যজনক- মুখ্যমন্ত্রী




জিডি বিড়লা স্কুলের ঘটনাকে দুর্ভাগ্যজনক- মুখ্যমন্ত্রী

কলকাতা নিউজ ২৪ : 04/12/2017

100779-birlaschool

কলকাতা ডেক্স  : জিডি বিড়লা স্কুলে শিশু পড়ুয়ার উপর যৌন নির্যাতনের ঘটনাকে দুর্ভাগ্যজনক বললেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ সোমবার রাজ্যের সর্বোচ্চ প্রশাসনিক কার্যালয় নবান্নে দাঁড়িয়ে তিনি একথা বলেন৷ যদিও এই ঘটনার পর সমস্ত শিক্ষককে দোষী সাব্যস্ত করা উচিত নয় বলেই মনে করেন মুখ্যমন্ত্রী৷ তাঁর কথায়, ‘‘সমস্ত শিক্ষক খারাপ নয়৷’’

এদিকেশিশু নির্যাতনের তদন্তে এদিন কলকাতা পুলিশের গোয়েন্দারা জি ডি বিড়লা স্কুলে যান৷ সেখানকার জুনিয়র সেকশন ঘুরে দেখেন৷ স্কুলের বাথয়েও তদন্ত করেন৷ কালই তদন্তভার নেয় লালবাজারের গোয়েন্দা বিভাগ৷

এদিন দুই অভিযুক্ত শিক্ষককে আলিপুর আদালতে পেশ করা হয়৷ এর আগে শনিবার তাদের আদালতে পেশ করা হয়েছিল৷ সেদিন থেকে তারা পুলিশি হেফাজতেই ছিল৷ কলকাতা পুলিশ সূত্রে খবরঅভিযু্ক্তদের বয়ানে এখনও অনেক অসঙ্গতি রয়েছে৷ সেগুলি স্পষ্ট হওয়া প্রয়োজন৷ তাই অভিযুক্ত দুজনকে ফের হেফাজতে নিতে চায় পুলিশ৷ এবার লালবাজারের গোয়েন্দারা জেরা করে জানতে ঘটনার আসল সত্যটা কীশেষ পর্যন্ত জি ডি বিড়লাকাণ্ডে ফের পুলিশ হেফাজত হয় ২ অভিযুক্তের৷ ১৫ ডিসেম্বর পর্যন্ত তাঁদের পুলিশ হেফাজতের নির্দেশ দেয় আলিপুরের ষষ্ঠ অতিরিক্ত জেলা বিচারক৷ ঠিক হয়েছে, ‘পকসো’ (প্রটেকশন অফ চিলড্রেন ফ্রম সেক্সুয়াল অফেন্সেস এক্ট) আদালতে নির্যাতিতা শিশুর গোপন জবানবন্দি নেওয়া হবে৷ সরকারি আইজীবীর আবেদন গৃহীত হয় আদালতে৷

এদিকে জিডি বিড়লা স্কুলে এই ঘটনা ঘিরে ক্ষোভের পারদ কমার লক্ষণই নেই৷ সোমবারও সকাল থেকে ওই স্কুলে বিক্ষোভ চলছে৷ ইতিমধ্যে এ নিয়ে কলকাতা হাইকোর্টে জনস্বার্থ মামলা দায়ের হয়েছে৷ ঘটনার তদন্ত এখন লালবাজারের গোয়েন্দাদের হাতে৷

নির্যাতিতা ছাত্রীর বাবার অভিযোগের ভিত্তিতে জিডি বিড়লা স্কুলের অধ্যক্ষা শর্মিলা নাথের বিরুদ্ধে পকসো’-সহ একাধিক ধারায় মামলা হয়েছে৷ তাঁকেও লালবাজারের গোয়েন্দারা শীঘ্রই তলব করতে পারেন বলে কলকাতা পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে৷ কিন্তু তার পরও স্কুল খোলা-সহ একাধিক দাবিতে সরব অভিভাবকরা৷

সূত্রের খবরএই পরিস্থিতিতে কিছুটা হলেও সুর নরম করেছে জিডি বিড়লা স্কুল কর্তৃপক্ষ৷ আগামিকালমঙ্গলবার এ নিয়ে বৈঠকেও বসতে চলেছে তারা৷ সেই বৈঠকে সমস্ত বিষয় নিয়ে অভিভাবকদের সঙ্গে স্কুল কর্তৃপক্ষের খোলাখুলি আলোচনা হওয়ার কথা৷ সেখানে লালবাজারের কর্তারাও থাকবেন বলেও সূত্র মারফত জানা গিয়েছে৷



Executive Editor: Akash Biswas
Associate Editor : Advocate Anshuman Sengupta
Address : kolkata
E-mail: [email protected]
© Copyright 2015 FILM & CRCC Computer center All rights reserved.